অর্থনীতি-ব্যবসা জাতীয় স্লাইডার

কাল রাজধানীসহ সারাদেশে শুরু হচ্ছে সপ্তাহব্যাপী আয়কর মেলা

জুমবাংলাে ডেস্ক: করসেবা প্রদান ও কর সচেতনতা বাড়াতে দশমবারের মত সারাদেশব্যাপী আয়কর মেলার আয়োজন করেছে জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর)।

আগামীকাল (১৪ নভেম্বর) থেকে রাজধানী ঢাকাসহ বিভাগীয় শহরে সপ্তাহব্যাপী এ মেলা মেলা শুরু হবে। চলবে ২০ নভেম্বর পর্যন্ত। রাজধানীতে এ মেলার আয়োজন করা হয়েছে মিন্টো রোডের অফিসার্স ক্লাব প্রাঙ্গণে।

এ ছাড়া সব জেলা শহরে চার দিন এবং ৪৮টি উপজেলায় দুই দিন মেলা হবে। পাশাপাশি উপজেলা পর্যায়ে ৮টি গ্রোথ সেন্টারে এক দিন ভ্রাম্যমাণ মেলা অনুষ্ঠিত হবে।

এবারের মেলার শ্লোগান হচ্ছে ‘সবাই মিলে দেব কর, দেশ হবে স্বনির্ভর’ এবং প্রতিপাদ্য নির্ধারণ করা হয়েছে ‘কর প্রদানে স্বতঃস্ফ’র্ত অংশগ্রহণ, নিশ্চিত হোক রুপকল্প বাস্তবায়ন’।

মঙ্গলবার রাজধানীর সেগুনবাগিচা রাজস্ব ভবন সভাকক্ষে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এনবিআর চেয়ারম্যান মো. মোশাররফ হোসেন ভূইয়া এসব তথ্য জানান।

তিনি বলেন, প্রতিবছরের মত করদাতারা এবারের মেলায়ও আয়কর বিবরণীর ফরম দাখিল থেকে শুরু করে কর পরিশোধের জন্য ব্যাংক বুথ পাবেন। তাঁদের জন্য মেলায় সহায়তাকেন্দ্রে অপেক্ষা করবেন কর কর্মকর্তারা। একই ছাদের নিচে সব সেবা মিলবে। করদাতা শুধু প্রয়োজনীয় কাগজপত্র সঙ্গে আনলেই হবে।

তিনি জানান, মেলায় ই-টিআইএন নিবন্ধন ও আয়কর বিবরণী গ্রহণ,কর পরিশোধ,আয়কর বিবরণী পূরণে সহায়তা এবং কর শিক্ষা প্রদানের প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা থাকবে।


চেয়ারম্যান বলেন,কর-রাজস্ব আহরণের ক্ষেত্রে আয়কর মেলা অনুপ্রেরণামূলক বিষয় হয়ে দাঁড়িয়েছে। সেখানে করদাতারা উৎসবমূখর পরিবেশে আয়কর বিবরণী দাখিল ও কর পরিশোধ করতে পারেন। তাই প্রতিবছর মেলার পরিধি বিস্তৃত হচ্ছে।

করদাতাদের সুবিধার্তে এবারের মেলায় কর সংক্রান্ত সকল তথ্য সম্বলিত একটি ওয়েবসাইট এবং কর পরিশোধে মোবাইল ব্যাংকিং সেবা চালু করা হয়েছে বলে তিনি জানান।

ওয়েবসাইট থেকে আয়কর বিবরণী ফরম ও চালান ফরম ডাউনলোড করার পাশাপাশি সব ধরনের নিদের্শিকা পাওয়া যাবে। তাই করমেলার ন্যায় অধিকাংশ সুবিধা ঘরে বসেই ভোগ করতে পারবেন করদাতারা।

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের উত্তরে মোশাররফ হোসেন বলেন, যারা বেশি আয়কর দেন,তারা যেন স্বচ্ছতার সাথে সেটি পরিশোধ করেন, এজন্য আমরা উদ্যোগ নিয়েছি। যেসব একাউন্টিং ফার্ম তাদের করের হিসাব করেন, সেসব ফার্মের হিসাব কার্যক্রম অডিট করা হবে। যদি কোন ফার্ম হিসাবের ক্ষেত্রে অনিয়ম করেন,তাদের শাস্তির আওতায় আনা হবে।

অপর এক প্রশ্নের উত্তরে তিনি জানান, চলতি করবর্ষে ৩০ লাখ আয়কর বিবরণী দাখিল হবে বলে প্রত্যাশা করছে এনবিআর।

উল্লেখ্য,এবারের মেলাও বরাবরের মত নতুন করদাতারা ইলেকট্রনিক কর শনাক্তকরণ নম্বর (ই-টিআইএন) নিতে পারবেন। আবার পুনঃ নিবন্ধন করে ই-টিআইএন নিতে পারবেন পুরনো করদাতারা। এ ছাড়া মেলায় ই-পেমেন্টের জন্য পৃথক বুথ থাকবে। মুক্তিযোদ্ধা, নারী,প্রতিবন্ধী ও প্রবীণ করদাতাদের জন্য থাকবে আলাদা বুথ।

এদিকে,আগামীকাল বৃহস্পতিবার বিকালে রাজধানীর হোটেল রেডিসন ব্লু ওয়াটার গার্ডেনে ২০১৮-১৯ অর্থবছরের জাতীয়ভাবে সেরা করদাতাগণকে ট্যাক্স কার্ড ও সম্মাননা প্রদান করা হবে।

উল্লেখ্য,প্রতিবছর ৩০ নভেম্বর পর্যন্ত আয়কর বিবরণী জমা দেওয়া যায়।


যাদের বাচ্চা আছে, এই এক গেইমে আপনার বাচ্চার লেখাপড়া শুরু এবং শেষ হবে খারাপ গেইমের প্রতি আসক্তিও।ডাউনলোডকরুন : http://bit.ly/2FQWuTP


আরও পড়ুন

এক জায়গায় তিনবার রাস্তা কাটতে পারবেন না : তাপস

Sabina Sami

করোনায় ঢাকা বিভাগে ১ হাজার ৭০০ জনের মৃত্যু

mdhmajor

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় সাদা কাগজে স্বাক্ষীদের স্বাক্ষর নেয়ার অভিযোগ এসআইয়ের বিরুদ্ধে

Sabina Sami

৩ বিকল্প উপায়ে বার্ষিক পরীক্ষার পরিকল্পনা

Shamim Reza

বঙ্গবন্ধুর পলাতক ৫ খুনিকে ফিরিয়ে আনার প্রচেষ্টা চলছে: আইনমন্ত্রী

mdhmajor

অনেক সরকারি কর্মকর্তা সিদ্ধান্ত এড়িয়ে চলতে চায়: বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী

Shamim Reza