বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি

খাড়া হয়ে চলা প্রাচীনতম এপের সন্ধান

87jবিজ্ঞান ও প্রযুক্তি ডেস্ক : জার্মানির বাভারিয়ায় কাদার খাদে পাওয়া এক প্রাচীন এপের দেহাবশেষ ইঙ্গিত দিচ্ছে যে আগের ধারণার তুলনায় আরও লাখো বছর আগে মানুষের পূর্বপুরুষরা খাড়া হয়ে দাঁড়াতে শুরু করেছিল। বুধবার বিজ্ঞানীরা এ তথ্য জানিয়েছেন।

একদল আন্তর্জাতিক বিজ্ঞানী জানান, আজকের দক্ষিণ জার্মানির আর্দ্র বনে প্রায় ১ কোটি ১৬ লাখ বছর আগে বাস করা এক পুরুষ এপের ফসিল হয়ে যাওয়া কঙ্কালের অংশগুলোর সাথে আধুনিক মানুষের হাড়ের মিল রয়েছে।

নেচার সাময়িকীতে প্রকাশিত গবেষণায় তারা উপসংহার টানেন যে আগে সন্ধান না পাওয়া প্রজাতি ডেনোভিস গোগেনমোসি সম্ভবত দুই পায়ে হাঁটতে এবং সেই সাথে এপের মতো গাছে চড়তে পারত।

গবেষণায় নেতৃত্ব দেয়া জার্মানির ইউনিভার্সিটি অব টোবিনের ম্যাডেলিন বোয়েহমি বলেন, ‘এ ফলাফল গ্রেট এপস ও মানুষের বিবর্তন নিয়ে আমাদের আগের জানাশোনা বিষয়ে মৌলিক প্রশ্ন তুলেছে।’

এপ কখন দুই পায়ে হাঁটা শুরু করে সেই প্রশ্ন বিজ্ঞানীদের মুগ্ধ করে রেখেছে। আগে খাড়া হয়ে চলাচল করা এপের যে ফসিলগুলো ক্রিট ও কেনিয়াতে পাওয়া গিয়েছিল তা মাত্র ৬০ লাখ বছরের পুরোনো।

ম্যাডেলিন বোয়েহমি ও তার দলের বুলগেরিয়া, জার্মানি, কানাডা ও যুক্তরাষ্ট্রের গবেষকরা জার্মানির মিউনিখ শহরের ৭০ কিলোমিটার পশ্চিমের এক প্রত্নতাত্ত্বিক এলাকা থেকে উদ্ধার করা ১৫ হাজারের অধিক হাড় পরীক্ষা করেন। সেখান থেকে তারা চারটি এপের ফসিলের অংশগুলো জোড়া দেন, যেগুলো ১ কোটি ১৬ লাখ ২০ হাজার বছর আগে জীবিত ছিল। তাদের মধ্যে একটি প্রাপ্ত বয়স্ক পুরুষ, যার উচ্চতা ৩ ফুট ৪ ইঞ্চি, তার ওজন ছিল ৩১ কেজি এবং তা দেখতে ছিল আজকের বেবুনের মতো।



জুমবাংলানিউজ/এসআর




আপনি আরও যা পড়তে পারেন


Add Comment

Click here to post a comment

সর্বশেষ সংবাদ