Coronavirus (করোনাভাইরাস) আন্তর্জাতিক

চীনের উহান শহরে ৮ই এপ্রিল উঠে যাচ্ছে লকডাউন

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: বিশ্বের নানা দেশ যখন করোনাভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে মরিয়া হয়ে লড়ছে – তখন চীনের কর্তৃপক্ষ ঘোষণা করেছে যে আগামী ৮ই এপ্রিল থেকে উহান শহরে আংশিকভাবে লকডাউন উঠে যাবে। এই উহান শহর থেকেই চীনে করোনাভাইরাস সংক্রমণের সূচনা। যা এখন বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে পড়েছে।

কর্মকর্তারা বলছেন, উহান শহরটি যে প্রদেশের অন্তর্গর সেই হুবেইয়ের সুস্থ বাসিন্দাদের চলাফেরার ওপর যে নিষেধাজ্ঞা ছিল, তা মঙ্গলবার (২৪ মার্চ) মধ্যরাত থেকে প্রত্যাহার করা হবে। এক সপ্তাহ ধরে উহানে নতুন কোন করোনাভাইরাস রোগী না পাওয়া গেলেও মঙ্গলবার (২৪ মার্চ) এক ব্যক্তির দেহে নতুন সংক্রমণের খবর পাওয়া গেছে।

করোনাভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে বিশ্বের অনেক দেশই এখন পুরোপুরিভাবে বিচ্ছিন্ন হয়ে রয়েছে। গত জানুয়ারি মাসের মাঝামাঝি থেকেই উহানকে সারা বিশ্ব থেকে আলাদা করে রাখা হয়েছিল।

কিন্তু এখন কর্মকর্তারা বলছেন, যাদের ফোনের অ্যাপে বিশেষভাবে ইস্যু করা সবুজ কোড রয়েছে, তারা আগামী ৮ই এপ্রিল থেকে উহান ত্যাগ করতে পারবেন। সরকারি হিসেব মতে, গত ২৪ ঘণ্টায় চীনের মূল ভূখণ্ডে প্রায় ৮০ জনের দেহে নতুন করে করোনাভাইরাস সংক্রমণ হয়েছে।
কিন্তু এদের মধ্যে ৭৬ জনই সংক্রমিত হয়েছেন ‘বিদেশ থেকে আসা’ ব্যক্তিদের মাধ্যমে।

করোনাভাইরাসের এই ‘দ্বিতীয় ঢেউ’ চীন ছাড়াও দক্ষিণ কোরিয়া এবং সিঙ্গাপুরেও লক্ষ্য করা গেছে। যদিও দুটি দেশই গত কয়েক সপ্তাহে এই ভাইরাসের বিস্তার রোধে বেশ সফল হয়েছে।

সাংহাই থেকে বিবিসির সংবাদদাতা রবিন ব্র্যান্ট জানান, চীন নিজেকে একটি ‘করোনা-উত্তর’ দেশ হিসেবে বিবেচনা করে থাকে। গত সপ্তাহের উহানের মেডিকেল কর্মীরা ব্রিটেনকে সতর্ক করেছে এই বলে যে তারা যেন তাদের ভুল থেকে শিক্ষা গ্রহণ করেন। বিশেষ করে স্বাস্থ্যসেবা কর্মীদের রক্ষার্থে যেন সংক্রমণ-প্রতিরোধী পোশাক-পরিচ্ছদ সরবরাহ করা হয়।

তিনি জানান, করোনাভাইরাসের ‘দ্বিতীয় ঢেউ’ নিয়ে চীনের ভেতরে নতুন করে উদ্বেগ দেখা দিয়েছে।

এরই মধ্যে চীনের কিছু শীর্ষস্থানীয় কূটনীতিক সোশাল মিডিয়ায় এই তত্ত্ব প্রচার করছেন যে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র করোনাভাইরাসকে যুদ্ধের অস্ত্র হিসেবে ব্যবহার করেছে এবং তারা উহানে এই ভাইরাস ছড়িয়ে দিয়েছে। ইতালিতে উহানের আগে থেকেই কোভিড-১৯ উপস্থিত ছিল বলেও তারা বলার চেষ্টা করছেন।

বিবিসির সংবাদদাতা বলছেন, এসব বক্তব্যের মধ্যে দিয়ে চীন তার নিজের ভাবমূর্তি পুনরুদ্ধারের লক্ষ্যে মানুষের মনে সন্দেহ ঢুকিয়ে দেয়ার চেষ্টা করছে এবং প্রতিষ্ঠিত সত্যকে প্রশ্নবিদ্ধ করার চেষ্টা করছে। তথ্যসূত্র: বিবিসি।

যাদের বাচ্চা আছে, এই এক গেইমে আপনার বাচ্চার লেখাপড়া শুরু এবং শেষ হবে খারাপ গেইমের প্রতি আসক্তিও। ডাউনলোডকরুন : http://bit.ly/2FQWuTP

আরও পড়ুন

করোনা মোকাবেলায় ইউএস ওপেনের কোর্ট এখন হাসপাতাল

Sabina Sami

করোনা যুদ্ধে দৃষ্টান্ত স্থাপন করলেন চীনের যে চিকিৎসক

Sabina Sami

করোনা পরিস্থিতিতে বাড়ির বাইরে দেখামাত্রই গুলির নির্দেশ প্রেসিডেন্টের

Sabina Sami

দুঃসময়ে উদার সাহসীদের জন্য শ্রদ্ধা

Sabina Sami

করোনার হানা এবার এশিয়ার বৃহত্তম বস্তিতে, আতঙ্কে মুম্বাই

Sabina Sami

করোনা পরিস্থিতি ভীতিকর হচ্ছে

globalgeek