অপরাধ-দুর্নীতি

ছাত্রীকে বাসায় আটকে সর্বনাশ করলো চেয়ারম্যানপুত্র

নেত্রকোনার দুর্গাপুরে কাঁকৈরগড়া ইউনিয়নের বসনকোনা গ্রামে ছাত্রীকে তুলে নিয়ে বাসায় আটকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে চেয়ারম্যান পুত্রের বিরুদ্ধে। এঘটনার পর ওই ছাত্রী বিয়ের দাবিতে ওই চেয়ারম্যান পুত্রের বাড়িতে অবস্থান করলে তোলপাড় সৃষ্টি হয় এলাকা জুড়ে। এ খবর ছড়িয়ে পড়লে বিষয়টি মিমাংসার জন্য একটি চক্র চেষ্টা করেও ব্যর্থ হয়।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, ওই ছাত্রী গত মঙ্গলবার তার নানার বাড়িতে বেড়াতে যায় পরে দুপুরে নানার বাড়ি থেকে নিজ বাড়িতে ফেরার পথে স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান ও প্রধান শিক্ষক মীর নূর মোহাম্মদের ছেলে মীর আবুল কাইয়ুম ওই ছাত্রীকে তুলে নিয়ে যায়। পরে তার বাসায় নিয়ে একাধিকবার ধর্ষণ করে ভোরে বাড়ি থেকে পালিয়ে যায়। ওই দিন থেকেই ওই ছাত্রী বিয়ের দাবীতে ওই চেয়ারম্যান পুত্রের বাড়িতেই অবস্থান করছে।

শনিবার রাতে খবর পেয়ে ওসি (তদন্ত) মীর মাহবুবুর রহমান ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে ওই ছাত্রীকে থানায় নিয়ে আসে। এরই প্রেক্ষিতে রোববার ওই ছাত্রীর বাবা বাদী হয়ে মীর কাইয়ুমকে প্রধান আসামি করে ৩ জনের বিরুদ্ধে একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করেন।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ওসি (তদন্ত) মীর মাহবুবুর রহমান বলেন, ওই ছাত্রীর বাবার অভিযোগের প্রেক্ষিতে মামলা রুজু করা হয়েছে। ওই ছাত্রীকে ডাক্তারি পরীক্ষার ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে। এ ঘটনায় সহায়তাকারি কাইয়ুমের চাচাতো ভাই মোকতাদিরকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।


জুমবাংলানিউজ/ জিএলজি




আপনি আরও যা পড়তে পারেন


সর্বশেষ সংবাদ