ক্রিকেট (Cricket) খেলাধুলা

জানা গেল মুশফিকের পাকিস্তান না যাবার কারণ

স্পোর্টস ডেস্ক : আগেই জানা, তিনি মানে মুশফিকুর রহীম পাকিস্তান সফরে যাবেন না। যদিও মৌখিকভাবে বোর্ডে জানালেও কাল বৃহস্পতিবার রাত পর্যন্ত তিনি লিখিতভাবে জানাননি যে- আমি পাকিস্তান যাব না। তবে বলেছেন যেহেতু, বিসিবিও তার সিদ্ধান্তে সম্মান জানাচ্ছে। মুশফিকের তাই পাকিস্তান না যাওয়া বলতে গেলে নিশ্চিত।

কিন্তু কেন মুশফিক পাকিস্তান যেতে চাইছেন না? সেটা কি তার নিজের ইচ্ছে? নাকি পরিবারের চাপ, উদ্বেগ-উৎকন্ঠা আর শঙ্কায়? আর তিনি কি শুধুই টি-টোয়েন্টি সিরিজে যাবেন না? টেস্ট সিরিজ কি খেলবেন? এসব কৌতুহলী প্রশ্ন অনেকের মনেই ঘুরপাক খাচ্ছে।

আজ (শুক্রবার) বিপিএল ফাইনালের পর মুশফিক যখন প্রেস মিটে আসলেন, তখনও সেই প্রশ্নই উঠলো। পাকিস্তান সফর নিয়ে অন্তত গোটা চারেক প্রশ্নর সম্মুখীন হয়েছেন দেশসেরা এই ব্যাটসম্যান।

জবাবে প্রথমেই মুশফিক জানিয়ে দেন, তার সিদ্ধান্ত বদলের কোনোই সম্ভাবনা নেই। মুশফিকের ভাষায়, ‘আমার সিদ্ধান্ত পাল্টানোর প্রশ্নই আসে না। আমি তো অনেক আগেই জানিয়ে দিয়েছি আমি পাকিস্তান যাব না।’

একথা বলার পাশাপাশি তিনি যে লিখিতভাবে জানিয়েছেন, সেটা জানাতেও ভুল হলো না। মুশফিক যোগ করেন, ‌‌‘আমি পাকিস্তান না যাওয়ার কথা আনুষ্ঠানিকভাবে বোর্ডকে লিখিতও জানিয়েছি। জানিয়েছি, আমার পক্ষে পাকিস্তানে খেলতে যাওয়া সম্ভব নয়।’

সেটা কি নিরাপত্তার ঝুঁকির কারণে? মানে আপনি কি পাকিস্তানে যাওয়াকে ঝুকিপূর্ণ মনে করেই যেতে নারাজ। এ প্রসঙ্গে আপনার ব্যাখ্যা কি? এ প্রশ্ন ওঠার পর মনে হলো মুশফিক প্রশ্নকর্তা সাংবাদিকের ওপর একটু চটে গেলেন। উত্তর দিতে গিয়ে বলে ওঠেন-‘আপনিই বলেন, আর কি কারণ থাকতে পারে? আপনিই বলুন।’

পরে অবশ্য এ নিয়ে আরও প্রশ্ন উঠেছে। তখন বেশ গুছিয়েই জবাব দিয়েছেন মুশফিক। তিনি জানান, মূলত পরিবারের কারণেই পাকিস্তানে যেতে চাচ্ছেন না। তার পরিবার দেশে উদ্বেগ, উৎকন্ঠায় থাকবে, আর তিনি পাকিস্তানে গিয়ে খেলবেন এবং স্বাভাবিক পারফরম করবেন- সেটা কোনোভাবেই সম্ভব নয়।

মুশফিক বলেন, ‘আমার পরিবার পাকিস্তানে খেলতে যাওয়াকে রাজ্যের ঝুকিপূর্ণ মনে করে। তারা আমাকে যেতে দিতে চায় না। তারা আমাকে মিস করবে। আমার কথা ভেবে চিন্তায় অস্থির হবে। আমি তো আর তাদের শঙ্কা ও উদ্বেগের ভেতর ফেলে পাকিস্তান সফরে খেলতে যেতে পারি না। সেখানে গিয়ে আমি স্বস্তিতে থাকতে পারতাম না। আমার পক্ষে স্বাভাবিক পারফরম করা সম্ভবও হতো না।’

তবে ভবিষ্যতে সুযোগ আসলে যাবেন, এমন কথাও বলে রেখেছেন মুশফিক। টাইগার দলের উইকেটরক্ষক এই ব্যাটসম্যান যোগ করেন, ‘তবে আমি মানছি পাকিস্তানের উইকেট ভালো। খেলেও মজা। আগের চেয়ে অশান্ত অবস্থা খানিক ভালো হয়েছে। এরকম অবস্থা যদি আরও দুই থেকে তিন বছর চলে, ধারাবাহিকভাবে অবস্থার উন্নতি ঘটে, তখন হয়তো যাওয়ার চিন্তা করব।’

যাদের বাচ্চা আছে, এই এক গেইমে আপনার বাচ্চার লেখাপড়া শুরু এবং শেষ হবে খারাপ গেইমের প্রতি আসক্তিও। ডাউনলোডকরুন : http://bit.ly/2FQWuTP




জুমবাংলানিউজ/এসআর


আপনি আরও যা পড়তে পারেন


rocket

সর্বশেষ সংবাদ