in

দক্ষিণ চীন সাগরে যুদ্ধজাহাজ মোতায়েন করছে ভারত

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: মিত্র দেশগুলোর সঙ্গে নিরাপত্তা সম্পর্ক সম্প্রসারিত করার লক্ষ্যে ভারত চলতি মাসে দক্ষিণ চীন সাগরে চারটি যুদ্ধজাহাজ মোতায়েন করতে যাচ্ছে।

ভারতীয় কর্মকর্তারা বুধবার এই নৌ টাস্কফোর্স পাঠানোর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

বার্তা সংস্থা রয়টার্সের বরাতে জানা যায়, দক্ষিণ চীন সাগরে যুদ্ধজাহাজ পাঠানোর মাধ্যমে নয়াদিল্লি বেইজিংকে মোকাবিলার আঞ্চলিক রাজনীতিতে আরো বড় ভূমিকা নেওয়ার ইঙ্গিত দিল বলে মনে করছেন পর্যবেক্ষকরা। এমনিতেই চীনবিরোধী ভারতীয় সেনাবাহিনী গত বছর লাদাখ সীমান্তে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষের পর থেকে যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে সম্পর্ক আরো ঘনিষ্ঠ করার দিকে মনোযোগী হয়েছে।

তাদের ‘অ্যাক্ট ইস্ট’ নীতির অংশ হিসেবেই এ যুদ্ধজাহাজগুলো মোতায়েন করা হচ্ছে। এগুলো গুয়াম উপকূলে যুক্তরাষ্ট্র, জাপান ও অস্ট্রেলিয়ার সঙ্গে বার্ষিক এক মহড়ায় অংশ নেবে। এ চার দেশই ‘কোয়াডের’ সদস্য; দক্ষিণ চীন সাগরে বেইজিংয়ের আগ্রাসন রোধে এই জোটকে নিয়েই অগ্রসর হওয়ার পরিকল্পনা আছে মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের প্রশাসনের।

ভারত যে যুদ্ধজাহাজগুলো পাঠাচ্ছে তার মধ্যে একটি গাইডেড মিসাইল ডেস্ট্রয়ার ও একটি মিসাইল ফ্রিগেট আছে। এ জাহাজগুলো দক্ষিণপূর্ব এশিয়া, দক্ষিণ চীন সাগর ও পশ্চিম প্রশান্ত মহাসাগরীয় এলাকায় দুই মাসের জন্য মোতায়েন করা হচ্ছে বলে এক বিবৃতিতে জানিয়েছে ভারতীয় নৌবাহিনী। ওয়াশিংটন ও বেইজিংয়ের মধ্যে সাম্প্রতিক বছরগুলোতে যেসব ইস্যু নিয়ে বিরোধ চলছে তার মধ্যে দক্ষিণ চীন সাগর অন্যতম; ঐ জলসীমায় চীনের আধিপত্য নিয়ে দীর্ঘদিন ধরেই যুক্তরাষ্ট্র ও এর এশীয় মিত্ররা চিন্তিত।

জুনে ইউএসএস রোনাল্ড রিগানের নেতৃত্বে যুক্তরাষ্ট্রের বেশ কয়েকটি বিমানবাহী রণতরি দক্ষিণ চীন সাগরে প্রবেশ করেছিল। এ মাসে ফিলিপিন্স সাগরে একটি মহড়ায় যুক্তরাজ্যের কয়েকটি রণতরিরও অংশ নেওয়ার কথা রয়েছে।


Fiver best placte to make money from home