আন্তর্জাতিক ওপার বাংলা

নাগরিক হতে লাগবে ধর্মবিশ্বাসের প্রমাণপত্র!

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : ভারতে সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন (সিএএ) নিয়ে বিক্ষোভ অব্যাহত রয়েছে। কিন্তু এর মধ্যেও দমছে না কেন্দ্রীয় সরকার। সংশোধিত নাগরিকত্ব আইনে নাগরিকত্ব পাওয়ার নতুন শর্তের কথা জানিয়ে দিলেন স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক শীর্ষ কর্মকর্তা। নাগরিকত্ব দেওয়ার ক্ষেত্রে ধর্মই যে মুখ্য শর্ত, তা আরও একবার স্পষ্ট করে দিল স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়।

একটি সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমের বরাতে এ তথ্য জানা গেছে।

জানা গেছে, সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন অনুযায়ী নাগরিকত্ব পেতে হলে আবেদনপত্রের সঙ্গে জমা দিতে হবে ধর্মবিশ্বাসের প্রমাণপত্র। শুধু তাই নয়, একই সঙ্গে প্রমাণ দিতে হবে আবেদনকারী ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সালের আগে ভারতে এসেছেন। কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের নতুন আইনের এমনই খসড়া প্রস্তুত করেছে।

স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক শীর্ষ কর্মকর্তা ওই সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছেন, যাঁরা নতুন আইনের অধীনে নাগরিকত্ব চান, তাঁদের প্রমাণ করতে হবে যে তাঁরা অমুসলিম ৬ ধর্মের যে কোনও একটিতে বিশ্বাসী। নতুন আইনের নিয়মাবলিতেই এই শর্ত উল্লেখ করা থাকবে। তাছাড়া হিন্দু, শিখ, খ্রিস্টান, বৌদ্ধ, জৈন এবং পারসি ধর্মে বিশ্বাসীদের এটাও প্রমাণ করতে হবে যে, তাঁরা ৩১ ডিসেম্বর ২০১৪ সালের আগে ভারতে এসেছেন।

এছাড়াও, আসামের ক্ষেত্রে আরও বেশ কয়েকটি শর্ত চাপানো হয়েছে।

স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের ওই কর্মকর্তা জানিয়েছেন, আসামের ক্ষেত্রে নাগরিকত্বের জন্য আবেদন করার সুযোগ থাকবে মাত্র ৩ মাস। ওই সময়সীমার মধ্যে আবেদন না করলে মিলবে না নাগরিকত্ব। আসামের বেশ কিছু অঞ্চলকে এই নতুন আইন থেকে বাদ দেওয়া নিয়েও আলোচনা চলছে বলে সূত্রের খবর।

সিএএ বিরোধীদের মূল যুক্তি ছিল, ধর্মের ভিত্তিতে নাগরিকত্ব দেওয়া ধর্মনিরপেক্ষ রাষ্ট্রের সংবিধানের পরিপন্থী। এই আইন বাতিলের দাবিতে বিস্তর আন্দোলনও হয়েছে। কেন্দ্রীয় সরকার আগেই জানিয়ে দিয়েছিল, আইন বাতিলের প্রশ্নই ওঠে না। তবে, এবার স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় বুঝিয়ে দিল, বিরোধীরা যতই বিক্ষোভ দেখাক, ধর্মই নতুন নাগরিকত্ব আইনের মূল ভিত্তি। সূত্র : সংবাদ প্রতিদিন

যাদের বাচ্চা আছে, এই এক গেইমে আপনার বাচ্চার লেখাপড়া শুরু এবং শেষ হবে খারাপ গেইমের প্রতি আসক্তিও। ডাউনলোডকরুন : http://bit.ly/2FQWuTP




জুমবাংলানিউজ/এসআর


আপনি আরও যা পড়তে পারেন


rocket

সর্বশেষ সংবাদ