in

নামাজের ইকামত দেয়া নিয়ে সংঘর্ষ, নিহত ১

ঝিনাইদহে নামাজের আকামত দেওয়াকে কেন্দ্র করে মোদাচ্ছের হোসেন মোল্লা (৫৫) নামের এক কৃষককে ধারালো অস্ত্র দিয়ে হত্যা করা হয়েছে। শুক্রবার ( ৩০ জুলাই) সকালে সদর উপজেলার দোগাছী ইউনিয়নের পুটিয়া গ্রামে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে এ হত্যা কান্ড ঘটে। এসময় আহত আহত আরো পাঁচ জন। ঝিনাইদহে সদর উপজেলার পুটিয়া গ্রামের মৃত শুকুর হোসেন মোল্লার ছেলে মোদাচ্ছের হোসেন মোল্লা।

গ্রামবাসী ও স্থানীয়রা এবং নিহতের চাচাতো ভাই সোহাগ হোসেন জানান, দীর্ঘদিন ধরে পুটিয়া গ্রামে সামাজিক আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে জাফর হোসেন ও মিলন হোসেন সমর্থকদের মাঝে বিরোধ চলে আসছিল। উভয় গ্রুপের লোকজন বৃহস্পতিবার মাগরিবের নামাজের জন্য পুটিয়া মসজিদে যায়। এসময় নামাজের আকামত দেওয়াকে কেন্দ্র করে মসজিদে মধ্যে উভয় গ্রুপের বাক-বিতন্ডা ও হাতাহাতি হয়। এরই জের ধরে শুক্রবার সকালে উভয় পক্ষের লোকজন আবারো সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। এসময় প্রতিপক্ষের লোকজন

মোদাচ্ছেরসহ ৬/৭ জনকে ধারালো অস্ত্রদিয়ে মারাত্বকভাবে আঘাত করে। সেখান থেকে আহতদের উদ্ধার করে ঝিনাইদহ সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তবত্যরত চিকিৎসক মোদাচ্ছেরকে মৃত ঘোষণা করে। আহত ৫ জন হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন।

ঝিনাইদহ সদর থানার ওসি (তদন্ত) এমদাদুল হক জানান, সামাজিক আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে মোদাচ্ছেরের মৃত্যু হয়েছে। এলাকার পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। জড়িতদের গ্রেফতারে অভিযান চালানো হচ্ছে বলে তিনি আরো জানান।

অনলাইনে খুব সহজে টাকা ইনকাম করার উপায়