in , ,

পিছিয়ে গেল চতুর্থ ধাপের ইউপি নির্বাচন: নতুন তারিখ ঘোষণা

জুমবাংলা ডেস্ক: চতুর্থ ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনের তারিখ পরিবর্তন করা হয়েছে। তফসিল অনুযায়ী ২৩ ডিসেম্বরের পরিবর্তে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে ২৬ ডিসেম্বর। ওই দিন এইচএসসি পরীক্ষা থাকার কারণে নির্বাচন কমিশন তারিখ পরিবর্তন করেছেন বলে জানিয়েছেন, নির্বাচন কমিশন সচিব হুমায়ন কবীর খোন্দকার।

আগামী ২ ডিসেম্বর সারাদেশে অনুষ্ঠিত হবে এইচএসসি পরীক্ষা। পরীক্ষার শিডিউল অনুযায়ী, চতুর্থ ধাপের ভোটগ্রহণের দিন ২৩ ডিসেম্বর সকালে ও বিকালে পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।ওই দিন সকালে ভূগোল দ্বিতীয়পত্র এবং বিকালে আরবি দ্বিতীয়পত্র পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। এর আগের ২২ ডিসেম্বরও সকাল-বিকেল এ দুটি বিষয়ের প্রথমপত্রের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।

জানা গেছে, এইচএসসি পরীক্ষার দিনে ভোটগ্রহণের তারিখের বিষয়টি নজরে এলে শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি পরীক্ষার বিষয়টি বিবেচনায় নিয়ে ভোটগ্রহণের তারিখ পরিবর্তনের জন্য প্রধান নির্বাচন কমিশনারকে অনুরোধ করেন। যার প্রেক্ষিতে চতুর্থ ধাপের ইউপি ভোট ২৩ ডিসেম্বরের পরিবর্তে ২৬ ডিসেম্বর পুনর্নির্ধারণ করা হয়েছে।

চতুর্থ ধাপে দেশের ৮৪০টি ইউনিয়ন পরিষদে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে।

ইতোমধ্যে ৩টি পৌরসভা এবং চতুর্থ ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনে রংপুর, রাজশাহী, খুলনা ও বরিশাল বিভাগের দলীয় প্রার্থীদের নামের তালিকা প্রকাশ করেছে আওয়ামী লীগ ৷

এদিকে তফসিল নিয়ে নির্বাচন কমিশনের (ইসি) সভা মুলতবি হওয়ায় পঞ্চম ধাপে সারা দেশে ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা পিছিয়ে গেলো। বলা হচ্ছে প্রস্তুতি সম্পন্ন না হওয়ায় তফসিল পিছিয়ে দেয়া হলো। ফলে ডিসেম্বরে এই ধাপের নির্বাচন সম্পন্ন করা সম্ভব হচ্ছে না। এই ভোট আগামী জানুয়ারিতেই হতে পারে। কমিশনের পরবর্তী সভা আগামী ২৭ নভেম্বর অনুষ্ঠিত হবে। ওই বৈঠকেই তফসিল ঘোষণার বিষয়ে আনুষ্ঠানিক সিদ্ধান্ত আসতে পারে বলে ইসি সূত্রে জানান গেছে।

প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কে এম নূরুল হুদার সভাপতিত্বে গতকাল সকালে নির্বাচন ভবনে অনুষ্ঠিত হয়। সভায় জ্যেষ্ঠ কমিশনার মাহবুব তালুকদার, বেগম কবিতা খানম ও ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (অব:) শাহাদত হোসেন চৌধুরীর উপস্থিতিতে কমিশনের ৯০তম সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভাটি দুই ঘণ্টা চলার পর মূলতবি ঘোষণা করা হয়েছে। এ সভার অন্যতম এজেন্ডা ছিল পঞ্চম ধাপের এক হাজার ইউপি নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা কিন্তু সভাটি শেষ না করে মুলতবি করা হয়েছে।

ইসি সূত্র বলছে, গতকাল তফসিল ঘোষণা করা গেলে পঞ্চম ধাপের ইউপি নির্বাচন ডিসেম্বরে শেষ সপ্তাহে অনুষ্ঠিত হতো। কিন্তু তফসিল পিছিয়ে যাওয়ায় এই ভোট গ্রহণ হবে আগামী ২০২২ সালের জানুয়ারি মাসে। পঞ্চমধাপে দেশের বিভিন্ন অঞ্চলের প্রায় এক হাজার ইউনিয়ন পরিষদে ভোটগ্রহণ হবে।

এ দিকে ইসির যুগ্মসচিব এস এম আসাদুজ্জামান ইসির ৯০তম কমিশন সভা মূলতবি হওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, গতকাল বেলা ১১টায় ইসির ৯০তম পূর্বনির্ধারিত কমিশন সভা শুরু হয়। সভাটি দুই ঘণ্টা চলার পর মূলতবি করা হয়েছে। মুলতবি সভাটি আগামী ২৭ নভেম্বর শনিবার বেলা সাড়ে ১১টায় অনুষ্ঠিত হবে।

ইসি সূত্র জানায়, এরই মধ্যে নির্বাচন কমিশন চার ধাপে তিন হাজার ৪৯টি ইউপি নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করেছে। গতকাল প্রায় এক হাজারটি ইউপি নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করার কথা ছিল। কিন্তু ইসির প্রস্তুতি সম্পন্ন না হওয়ায় পঞ্চম ধাপের তফসিল কিছুটা পিছিয়ে দেয়ার জন্য সভাটি মূলতবি করা হয়েছে।

একই ওয়ার্ডে ভোটযুদ্ধে মাঠে নেমেছেন ননদ-ভাবি