in

বিচারকের আসন থেকে সরিয়ে দেওয়া হলো শিল্পাকে!

বিনোদন ডেস্ক: বলি পাড়াতে কান পাতলেই অভিনেত্রী শিল্পা শেঠি স্বামী রাজ কুন্দ্রা জেলে যাওয়ার খবর। আর স্বামীর কুকর্মের ফল হারে হারেই পেতে হচ্ছে শিল্পাকে। প্রভাব পড়েছে তার ভাবমূর্তিতে। স্বামী গ্রেপ্তার হওয়ার খবরে নিজের ভাবমূর্তি নষ্টের আঁচ পেয়েছেন শিল্পা। তাই তো ডান্স রিয়েলিটি শো সুপার ডান্সার সিজন ৪-এর বিচারকের আসন থেকে আপাতত বিরতি নিয়েছেন এই নায়িকা।

স্বামীর গ্রেপ্তারের পর নিজের সমস্ত শুটিং বাতিল করেছেন শিল্পা। তার পরিবর্তে বিচারকের আসনে দেখা যাচ্ছে কারিশমা কাপুরকে। স্বামীর গ্রেপ্তার এবং পারিবারিক জীবনে সমস্যার প্রভাবের জেরেই রিয়েলিটি শো থেকে সরেছেন শিল্পা। কিন্তু বাতাসে ভেসে বেড়াচ্ছে অন্য খবর, প্রযোজনা সংস্থা শিল্পাকে সরিয়ে কারিশমাকেই সিজনের জন্য বিচারকের আসনে বসাতে চাইছে।

৯০-এর দশকের জনপ্রিয় অভিনেত্রী কারিশমা কাপুর। শিল্পা ও কারিশমা বলিউডের সমসাময়িক অভিনেত্রী। এর আগেও রিয়েলিটি শোতে বিচারকের ভূমিকায় দেখা গেছে করিশমাকে। স্টার প্লাসে নাচ বলিয়েতে দেখা গিয়েছিল তাকে। শো-এ পৃথ্বীরাজ নামে এক প্রতিযোগী কারিশমার ‘আনাড়ি’ ছবির গান ‘ফুলো সা চেহরা তেরা’তে পারফর্ম করেন। কারিশমাকে ফিরিয়ে নিয়ে যায় তার ছোটবেলার স্মৃতিতে। অভিনেত্রী খুশি হয়ে সেই প্রতিযোগীকে ৫ জোড়া জুতাও উপহার দিয়েছেন।
পর্নোগ্রাফি ছবি বানিয়ে তা বিভিন্ন অ্যাপে প্রকাশ করার অভিযোগে গত সোমবার (১৯ জুলাই) রাজ কুন্দ্রাকে গ্রেপ্তার করেছে মুম্বাই পুলিশের ক্রাইম ব্রাঞ্চ। এ ঘটনায় অন্যতম মূল অভিযুক্ত হিসেবে রাজকে উল্লেখ করা হয়। এই মামলায় এখনও পর্যন্ত ১১ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

জানা গেছে, ২০১৯-এর ফেব্রুয়ারিতে রাজ ‘আর্মস প্রাইম মিডিয়া প্রাইভেট লিমিটেড’ নামে একটি সংস্থা খোলেন। তার ছয় মাস পরই সংস্থাটি ‘হটশট’ নামে একটি মুঠোফোন অ্যাপ তৈরি করেছিল। তদন্তকারী অফিসারদের দাবি, যা প্রশাসনের কাছে পর্নো অ্যাপ নামে চিহ্নিত।

সাম্প্রতিক খবর অনুযায়ী, রাজকুন্দ্রা ৯টি সংস্থার পরিচালক পদে রয়েছেন। অন্যদিকে শিল্পা শেঠি মোট ২৩টি সংস্থার পরিচালক পদে রয়েছেন।

অনলাইনে খুব সহজে টাকা ইনকাম করার উপায়