in ,

মালয়েশিয়ায় কর্মীদের ভিসা নবায়নে বিলম্ব, দ্রুত সমাধানের চেষ্টা ইমিগ্রেশনের

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : মালয়েশিয়ায় বিদেশি কর্মীদের ভিসা নবায়নে বিলম্ব হচ্ছে। আর এর সমাধানের দ্রুত চেষ্টা করছে ইমিগ্রেশন বিভাগ। এদিকে, ভিসা নবায়নে বিলম্ব হচ্ছে স্বীকার করে ইমিগ্রেশন বিভাগ বলছে, সমস্যা সমাধানের প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন সংশ্লিষ্ট বিভাগের কর্তারা। তারা বলছেন, আগামি তিন মাসের মধ্যে প্রায় দুই লাখ ভিসা স্টিকার প্রদান করা হবে ।

২৯ জুলাই ইমিগ্রেশন বিভাগের মহাপরিচালক দাতুক খায়রুল দাযাইমি দাউদ এক বিবৃতিতে বলেছেন, ভিসা নবায়ন প্রক্রিয়াটি দ্রুত করার জন্য একটি টাস্কফোর্স গঠন করা হয়েছে। চলমান মহামারি সংক্রমণরোধে লকডাউনের কারণে অফিসে সীমিত সংখ্যক অফিসার কাজ করছেন, এতে স্টিকার পেতে “কিছুটা বিলম্বিত হচ্ছে, তবে সমস্যার দ্রুত সমাধানের চেস্টা চলছে”।

গঠিত টাস্কফোর্স, আটকে থাকা নবায়ন স্টিকারগুলো ক্লিয়ার করা শুরু jকরেছে। আগামী অক্টোবরের মধ্যেই বিষয়টি সমাধান হবে বলে আশা করছেন পরিচালক। বিলম্বিত হওয়া ভিসা নবায়নের স্টিকারগুলো বেশিরভাগই সেলাঙ্গর, কুয়ালালামপুর এবং নেগরি সেম্বিলান প্রদেশের বলে জানাগেছে। এই প্রদেশগুলো এখনও জাতীয় কঠোর লকডাউন পরিকল্পনার প্রথম ধাপের অধীনে রয়েছে। যেখানে চলাচল মারাত্মকভাবে সীমাবদ্ধ।

এসব প্রদেশের নিয়োগকর্তারা দাবি করছেন, তাদের বিদেশী কর্মীদের ভিসা নবায়নের জন্য লেভী অর্থ প্রদান করার পরেও ভিসা স্টিকারগুলি পাচ্ছেন না।

মালিকপক্ষ এজন্য আরও উদ্বেগের বিয়স হলো, ইমিগ্রেশন তাদের এবং কর্মীদের বিরুদ্ধে অভিযানের সময় মেয়াদোত্তীর্ণ ওয়ার্ক পারমিটধারীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে পারে। খায়রুল দাযাইমি বলেন, ইমিগ্রেশন অফিসগুলিতে কর্মচারীর সংখ্যা এখনও সীমিত হওয়ায় আটকে থাকা স্টিকার প্রদান করতে টাস্কফোর্সের প্রায় তিন মাস সময় প্রয়োজন।

যে সকল বিদেশী কর্মীর কাজের জন্য ভিসা নবায়নের আবেদন করেছেন, সে সব নিয়োগকারীদের বিরুদ্ধে কোনও ব্যবস্থা নেওয়া হবে না, তবে অভিযানের সময় ভিসা নবায়নের জন্য আবেদন করা লেভী স্লিপ যাচাই বাচাই দলিল হিসেবে গ্রহন করা হবে।

অনলাইনে খুব সহজে টাকা ইনকাম করার উপায়