Views: 248

জাতীয়

সিনহা রাশেদকে নিয়ে ‘জাস্ট গো’ ইউটিউবে ভিডিও আপলোড কারা করছে – তা নিয়ে ধোঁয়াশা

জুমবাংলা ডেস্ক : বাংলাদেশের কক্সবাজার জেলার মেরিন ড্রাইভে পুলিশের গুলিতে অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা মোঃ রাশেদ খানের নিহত হবার পর গত এক সপ্তাহে জাস্ট গো নামের একটি ইউটিউব চ্যানেল থেকে একের পর এক ভিডিও আপলোড করা হচ্ছে তাকে নিয়ে। তার সহকর্মী শিপ্রা দেবনাথ এক ভিডিও বার্তায় জানিয়েছেন, জাস্ট গো মিস্টার সিনহা রাশেদ ও তাদের একটি স্বপ্নের প্রজেক্ট। কিন্তু চ্যানেল খুললেও ওই ঘটনার আগে তারা সেটিতে কোন ভিডিও আপলোড করেননি। আবার যে ইউটিউব চ্যানেলটিতে তাদের নিয়ে ভিডিও আপলোড হচ্ছে সেটি খোলা হয়েছে ২২শে জুলাই। কিন্তু ভিডিও গুলো সব আপলোড করা হয়েছে মিস্টার সিনহা রাশেদের খুনের পর বিশেষ করে গত এক সপ্তাহে।

কী ধরণের কনটেন্ট আপলোড করা হচ্ছে?

নিহত সিনহা মোহাম্মদ রাশেদের সহকর্মী শিপ্রা দেবনাথ গত কয়েকদিনে গণমাধ্যমে যা বলেছেন তা হল– তারা গত ১৩ই জুলাই জাস্ট গো নামে ফেসবুক পেজ খুলেছিলেন। যেখানে অগাস্টের ১৫ তারিখের পর থেকে ভিডিও আপলোড আনুষ্ঠানিকভাবে শুরুর পরিকল্পনা করেছিলেন তারা। তবে মিস্টার সিনহা সহ তাদের স্বপ্ন ছিল ‘জাস্ট গো’ নামে ইউটিউব চ্যানেল। সেটা তারা খুলেছেন কিন্তু সেখানে কোন ভিডিও তারা আপলোড করেননি। এর মধ্যেই ৩১শে জুলাই রাতে পুলিশের গুলিতে মৃত্যু হয় মিস্টার সিনহা রাশেদের। হত্যাকাণ্ডের পর থেকে এখন দেখা যাচ্ছে ‘জাস্ট গো’ নামের একটি চ্যানেল থেকে একের পর পর ভিডিও আপলোড করা হচ্ছে। সেখানে মেজর সিনহার কক্সবাজারে তৈরি ভ্রমণ চিত্র, মেজর সিনহার স্কুল বিতর্ক, ‘কী ঘটেছিলো সেই রাতে সিফাতের মুখ থেকে শুনুন আসল ঘটনা’, ‘ডাক দিয়েছেন দয়াল আমারে’ – এমন শিরোনামে এ ধরণের অন্তত ১৩টি ভিডিও আপলোড করা হয়েছে গত এক সপ্তাহে।


সিনহা রাশেদের সহকর্মীরা কেউ আপলোড করেছে?

মিস্টার সিনহার সহকর্মী শিপ্রা দেবনাথের ঘনিষ্ঠ একটি সূত্র বিবিসি বাংলাকে নিশ্চিত করে বলেছেন যে এগুলো তারা আপলোড করেননি। বরং ঘটনার পর থেকে তাদের ল্যাপটপ কিংবা ফোন তাদের হাতে ছিল না ফলে ফেসবুক বা ইউটিউব ব্যবহারের সুযোগই তাদের ছিল না। পরে তারা জামিনে মুক্তি পাওয়ার পর ইউটিউবে এসব দেখেছেন এবং সে কারণেই শিপ্রা দেবনাথ ফেসবুকে আট মিনিটের একটি ভিডিও আপলোড করে বলেছেন, বেশ কিছু ভিডিও তারা করলেও সেগুলোর পুরোপুরি রেডি হয়নি বলে তারা আপলোড করেননি। তবে ভিডিও গুলো দেখলে এটি পরিষ্কার যে দু একটি ভিডিও ছাড়া বাকীগুলো মূলত মিস্টার সিনহা রাশেদকে নিয়েই দেয়া হয়েছে। এবং এগুলোকে আবার ফেসবুকসহ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ব্যাপক শেয়ার বা প্রচারও করা হচ্ছে।

তাহলে কারা করছে এগুলো? র‍্যাব কী বলছে?

র‍্যাবের গণমাধ্যম বিষয়ক পরিচালক লে: কর্নেল আশিক বিল্লাহ বলছেন যে এসব বিষয় তাদের নজরে আছে। তিনি বলছেন যে তদন্তকারী কর্মকর্তা সব বিষয় ‘পুঙ্খানুপুঙ্খভাবে পর্যালোচনা ও তদন্ত করছেন’। তদন্তের মাধ্যমেই সব বিষয় পরিষ্কার হবে বলে আশা করছেন তিনি। কারা ইউটিউবে আপলোড করছে ভিডিওগুলো সে সম্পর্কে কোন ধারণা পাওয়া গেছে কি-না জানতে চাইলে তিনি বলেন, তারা আশা করছেন পুরো বিষয়টির সুস্থ ও গুনগত তদন্ত হবে এবং এর মাধ্যমেই সেটি পরিষ্কার হবে বলে মনে করছেন তারা। সূত্র: বিবিসি বাংলা।


আরও পড়ুন

৯ হাজার শ্রমিককে প্রায় ৪০ কোটি টাকা সহায়তা

Saiful Islam

ভারতের সঙ্গে এত কষ্টে গড়া সম্পর্ক নষ্ট হচ্ছে পেঁয়াজের জন্য : সংসদীয় কমিটি

Sabina Sami

যেসব কারণে বাংলাদেশে শীতকালে করোনাভাইরাস পরিস্থিতি খারাপ হওয়ার আশঙ্কা

Sabina Sami

সমুদ্রবন্দরে ৩ নম্বর সতর্ক সংকেত

Saiful Islam

রাজধানীতে দুটি ৭তলা বিলাসবহুল ভবনসহ আরও যত অবৈধ্য সম্পদ রয়েছে স্বাস্থ্যের সাবেক এই চালকের

Sabina Sami

বন্দীর স্ত্রীর সাথে পরকীয়া, ভাগিয়ে নিয়ে ‘পালালেন’ কারারক্ষী

rony