২০ জুলাই মুখোমুখি হবেন নিখিল ও নুসরাত

বিনোদন ডেস্ক: পশ্চিমবঙ্গের অভিনেত্রী সংসদ সদস্য নুসরাত জাহান ও নিখিল জৈন এখন শুধু নামেই স্বামী-স্ত্রী। দীর্ঘ দিন ধরে তারা এক ছাদের নিচে থাকেন না। যোগাযোগ বন্ধ প্রায় ছয় মাস।

তবে খুব তাড়াতাড়ি আবার দেখা হতে চলেছে দুজনের। এবার সোজা আদালতে মুখোমুখি হবেন তারা।

নুসরাতের সঙ্গে বিচ্ছেদ চেয়ে নিখিল যে মামলা করেছেন, সেই মামলার শুনানির দ্বিতীয় তারিখ আগামী ২০ জুলাই। ওই দিন আলিপুর আদালতে উপস্থিত হতে হবে দু’পক্ষকেই।

এদিকে টালিপাড়ায় গুঞ্জন, নুসরাতের অন্তঃস্বত্ত্বা হওয়ার খবর প্রকাশ্যে আসতেই বিচ্ছেদের মামলা করেছেন স্বামী নিখিল।

তবে নিখিল আনন্দবাজার ডিজিটালকে বলেছেন, যে দিন জানলাম, নুসোত আমার সঙ্গে থাকতে চায় না, অন্য কারও সঙ্গে থাকতে চায়, সে দিনই দেওয়ানি মামলা করেছি আমি। নুসরাতের মা হওয়ার পরে এ সিদ্ধান্ত নিইনি আমি।

নিখিলের ঘনিষ্ঠ মহলের খবর, গত মার্চ মাসেই বিচ্ছেদ চেয়ে আদালতের দ্বারস্থ হয়েছিলেন তিনি। এ বিষয়ে যদিও নিখিল কোনো মন্তব্য করেননি।

প্রসঙ্গত দুই বছরের বেশি সময় আগে নিখিল জৈনের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক থেকে বিয়েতে জড়ান নুসরাত জাহান। কিন্তু বিয়ের এক বছর পরই আচমকাই ছন্দপতন রূপকথার প্রেমকাহিনিতে। নিখিল-নুসরাতের দাম্পত্য সম্পর্কের চিড় এখন টালিগঞ্জের ওপেন সিক্রেট।

যদিও টালিউডের গুঞ্জন, স্বামী নিখিল জৈনের সঙ্গে বিবাহবিচ্ছেদ হতে চলেছে অভিনেত্রীর। তবে এ বিষয়ে এখনও মুখ খোলেননি নিখিল বা নুসরাত।

এসওএস কলকাতা’ সিনেমার শুটিংয়ের সময় যশের প্রেমে পড়েছিলেন নুসরাত। এরপর রাজস্থানের মরুশহরে একসঙ্গে ঘুরতে গেলে প্রেমের গুঞ্জন নিশ্চিত খবরে পরিণত হয়। গত ৬ মাস ধরে নুসরাতের বালিগঞ্জের ফ্ল্যাটে থাকছেন যশ। এমনকি যশের সন্তানের মা-ও হতে চলেছেন অভিনেত্রী।


জুমবাংলানিউজ/এসওআর