Views: 185

লাইফস্টাইল স্বাস্থ্য

শরীরের জন্য উপকারী হলেও ওজন নিয়ন্ত্রণের কথা ভেবে এড়িয়ে চলবেন যেসব খাবার

লাইফস্টাইল ডেস্ক: এমন অনেক খাবার আছে যা স্বাস্থ্যের পক্ষে ভালো হলেও আপনার ওজন কমানোর ক্ষেত্রে বাঁধা সৃষ্টি করে। এসব খাবার শরীরের জন্য উপকারী হলেও ওজন নিয়ন্ত্রণের কথা ভেবে এড়িয়ে চলা উচিত।

চলুন জেনে নেওয়া যাক এমন কিছু খাবারের কথা-

স্মুদি:

স্মুদি শরীরের জন্য কত ভালো তা বলার অপেক্ষা রাখে না। তবে এতে লুকিয়ে আছে চিনি। অনেক ফলের প্রাকৃতিক চিনির মাত্রা অনেক বেশি। এতে করে ক্যালোরির পরিমাণ বাড়ে এবং ওজন বেড়ে যায়।

দই:

দই শরীরের জন্য অনেক ভালো। তবে কিছু ফ্লেভার দেওয়া দইয়ে অতিরিক্ত চিনি থাকে যা পরবর্তীতে ওজন বাড়ায়।

বাদাম:

বাদামের উপকারিতার কথা এককথায় বলে শেষ করা যাবে না। বাদামে স্বাস্থ্যকর ফ্যাট রয়েছে যা দিনশেষে ওজন বাড়ায়।

গ্রানোলা:

গ্রানোলা ফাইবার সমৃদ্ধ একটি আদর্শ খাবার হতে পারে সকালের নাস্তায়। তবে এতে অনেক চিনি আর তেল থাকে যা ওজন বাড়ায়।

পপকর্ন:

পপকর্ন অনেক ভালো একটি খাবার যদি ফ্রেশ হয়। তবে আপনি যদি প্যাকেট করা পপকর্নের কথা বলেন তাহলে তা শরীরের ওজন বাড়ায়।

অ্যাগেভ সিরাপ:

অ্যাগেভ সিরাপ চিনি ও মধুর বিকল্প হিসেবে কাজ করে। তবে এই সিরাপে বেশি পরিমাণে ফ্রুকটোজ থাকে তা মেটাবোলিজমে প্রভাব ফেলে আর এতে করে ওজন বাড়ে।

রেস্টুরেন্টের সালাদ:

সালাদ এক কথায় শরীরের জন্য অনেক ভালো হলেও রেস্টুরেন্টে যে সালাদ বানানো হয় তাতে সালাদের উপকরণ ছাড়াও বাদাম ও আরও অনেক উপাদান থাকে। এজন্য খাওয়ার আগে দেখে নিন কী কী উপাদান আছে।

অ্যাভোকাডো:

অ্যাভোকাডো অনেক উপকারী একটি ফল তবে অ্যাভোকাডোতে উপকারী ফ্যাট থাকে যার ফলে শরীর মুটিয়ে যায়।

তথ্যসূত্র: দ্যা টাইমস অব ইন্ডিয়া।


যাদের বাচ্চা আছে, এই এক গেইমে আপনার বাচ্চার লেখাপড়া শুরু এবং শেষ হবে খারাপ গেইমের প্রতি আসক্তিও।ডাউনলোডকরুন : https://play.google.com/store/apps/details?id=com.zoombox.kidschool



আরও পড়ুন

রমজানে সুস্থ থাকতে এড়িয়ে চলুন এই ৭টি বিষয়

Mohammad Al Amin

ব্যাগটি দেখতে বিমানের মতো, দাম প্রকৃত বিমানের চেয়েও বেশি

Shamim Reza

কম্পিউটারের ‘ব্লু লাইটে’ ত্বকের ক্ষতির হাত থেকে বাঁচতে মেনে চলুন এই বিষয়গুলো

Mohammad Al Amin

মশা দূর করতে বেছে নিন ঘরোয়া উপায়

Mohammad Al Amin

যেসব ডায়াবেটিস রোগীদের রোজা রাখা উচিত নয়

Mohammad Al Amin

যে কারণে ১২ বছরেও চিকিৎসা শুরু হয়নি এই হাসপাতালে

Sabina Sami