Views: 106

লাইফস্টাইল স্বাস্থ্য

হৃদযন্ত্রের জন্য উপকারী কুমড়ার বীজ

লাইফস্টাইল ডেস্ক: মিষ্টি কুমড়ার বীজ স্বাস্থ্যকর স্ন্যাকস হিসেবেই বেশ পরিচিত। এই বীজে প্রচুর ম্যাগনেশিয়াম, আয়রন ও আঁশ থাকে। আমেরিকান হার্ট অ্যাসোসিয়েশেন তাই প্রতিদিন এক কাপের চারভাগের এক ভাগ অর্থাৎ ৩০ গ্রাম মিষ্টি কুমড়ার বীজ খেতে পরামর্শ দেয়।

বিশেষজ্ঞদের মতে মিষ্টি কুমড়ার বীজ খেলে কী কী উপকার পাবেন জেনে নিন-

হৃদযন্ত্রের জন্য উপকারী

মিষ্টি কুমড়ার বীজে স্বাস্থ্যকর ফ্যাট, আঁশ ও অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট থাকে প্রচুর। এসব উপাদান হৃদযন্ত্রের জন্য খুব উপকারী। এই বীজে মনোস্যাচুরেটেড ফ্যাটি অ্যাসিড থাকে, যা ক্ষতিকর কোলেস্টেরলের মাত্রা কমিয়ে দিয়ে উপকারী কোলেস্টেরলের মাত্রা বাড়িয়ে দেয়। এতে থাকা ম্যাগনেশিয়াম রক্তচাপের মাত্রা নিয়ন্ত্রণে রাখে।

ঘুম ভালো হবে

মিষ্টি কুমড়ার বীজে আছে সেরোটোনিন নামের একটি নিউরো ক্যামিকেল, যা প্রাকৃতিক ঘুমের ওষুধ হিসেবে বিবেচিত। এতে ট্রিপটোফ্যান নামের একটি অ্যামাইনো অ্যাসিডও থাকে, যা শরীরে সেরোটোনিন তৈরি করে। এর ফলে এই বীজ খেলে ভালো ঘুম হয়। তাই ঘুমানোর আগে পরিমাণ মতো মিষ্টি কুমড়ার বীজ খেলে উপকার পাবেন বলেই জানিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা।

ব্যথানাশক

আথ্রাইটিসের ব্যথা সারাতে উপকারী মিষ্টি কুমড়ার বীজ। জয়েন্ট পেইন দূর করতেও বেশ উপকারী এই বীজ।

রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়

এই বীজে প্রচুর অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট ও ফাইটো ক্যামিকেল থাকে। এসব উপাদান দেহের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়, শরীর সুস্থ রাখে।

প্রোস্টেট ক্যানসারের ঝুঁকি কমাতে

এই বীজে জিংক আছে। গবেষণায় জানা গেছে পুরুষের প্রজনন ক্ষমতা বাড়াতে ও প্রোস্টেটের সমস্যা দূর করতে জিংক গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখে। মিষ্টি কুমড়ার বীজে ডাই হাইেড্রো এপি এন্ড্রোসটেনেডিয়ন নামের উপাদান থাকে, যা প্রোস্টেট ক্যানসারের ঝুঁকি কমায়।

ডায়াবেটিস রোগীদের জন্য উপকারী

মিষ্টি কুমড়ার বীজ অক্সিডেটিভ স্ট্রেস কমিয়ে ব্লাড সুগার লেভেল নিয়ন্ত্রণে রাখে। এই বীজে ডাইজেস্টিভ প্রোটিন বেশি থাকায় তা ব্লাড সুগার লেভেল ঠিক রাখে।

ওজন কমায়

মিষ্টি কুমড়ার বীজে প্রচুর প্রোটিন থাকে বলে এটি খেলে শরীরে শক্তি জোগায়। এতে আঁশ বেশি থাকে বলে এই বীজ খাওয়ার পর অন্য খাবার বেশি খাওয়ার আগ্রহ জাগে না। এ কারণে অতিরিক্ত খাওয়া থেকে বিরত থেকে শরীরের ওজন কমাতে পারেন আপনি।

চুল জন্মাতে সাহায্য করে

এই বীজে কিউকারবিটাসিন নামের একটি অ্যামাইনো অ্যাসিড থাকে, যা চুল জন্মাতে সাহায্য করে। এতে ভিটামিন সি থাকে প্রচুর, যা চুল বৃদ্ধিতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখে। মিষ্টি কুমড়ার বীজের তেল মাথার তালুতে ব্যবহার করতে পারেন অথবা প্রতিদিন পরিমিত এই বীজ খেতে পারেন।

ক্যানসারের ঝুঁকি কমায়

এই বীজ পাকস্থলী, ফুসফুস, ব্রেস্ট, কোলন ও প্রোস্টেট ক্যানসারের ঝুঁকি কমায়।

তাই এত সব উপকার পেতে মিষ্টি কুমড়ার বীজ সেদ্ধ করে খেতে পারেন। খাওয়া যায় সেদ্ধ করেও। অথবা সালাদে, তরকারিতে এই বীজ যোগ করে, স্মুদি বা সসের সাথে মিশিয়ে খেতে পারেন।

তথ্যসূত্র: পিংকভিলা।


যাদের বাচ্চা আছে, এই এক গেইমে আপনার বাচ্চার লেখাপড়া শুরু এবং শেষ হবে খারাপ গেইমের প্রতি আসক্তিও।ডাউনলোডকরুন : https://play.google.com/store/apps/details?id=com.zoombox.kidschool


আরও পড়ুন

সুস্থ-সবল থাকতে চার বিষয়ে হেলাফেলা নয়

Saiful Islam

রোজায় মুখের দুর্গন্ধ দূর করতে যা যা করণীয়

Mohammad Al Amin

এই গরমে ঘামাচি থেকে মুক্তি পাওয়ার ঘরোয়া উপায়

Mohammad Al Amin

এই গরমে ঘর শীতল রাখার সহজ উপায়

Saiful Islam

ইফতারে তরমুজের যত উপকারিতা

Shamim Reza

রাতে ঘুমের সময় ঘন ঘন পিপাসা কীসের লক্ষণ?

Shamim Reza