in ,

হৃদরোগের ঝুঁকি কমায় শসা

লাইফস্টাইল ডেস্ক: শসাকে বিউটি সুপারফুড হিসেবে বিবেচনা করা হয়। শসাতে পানির পরিমাণ অনেক বেশি থাকায় তা আমাদের শরীরকে হাইড্রেট করে। এ ছাড়া এর মধ্যে রয়েছে ভিটামিন কে এবং প্রদাহ প্রতিরোধী উদ্ভিদ যৌগ, যা চোখের জন্য অনেক উপকারী।

আর ত্বকের ও ডার্ক সার্কেলের চিকিৎসায় প্রাকৃতিক উপকরণ হিসেবে শসাকে বেছে নেওয়া হয় অনেক আগে থেকেই। এ ছাড়া রক্তচাপ কমাতে ও হার্টের জন্যও অনেক উপকারী শসা।

আজ জানুন শসার কিছু উপকারী দিক সম্পর্কে-

১. রক্তের শর্করা নিয়ন্ত্রণে সহায়তা করে

বেশ কয়েকটি গরেষণায় দেখা গেছে যে, শসা রক্তের শর্করার মাত্রা কমাতে বিশেষভাবে কার্যকরী। আর রক্তে শর্করার মাত্রা কম হওয়ার অর্থ হচ্ছে তা আমাদের রক্তনালিগুলোর পাশাপাশি হার্টকে নিয়ন্ত্রণ করে এবং হার্টের স্নায়ুগুলোকে ক্ষতি থেকে রক্ষা করে।

এ ছাড়া অন্য একটি গবেষণায় দেখা গেছে যে, শসার খোসায় পুষ্টি ও ফাইবার থাকার কারণে তা রক্তে শর্করার হ্রাসসহ অনেক ডায়াবেটিস সম্পর্কিত সমস্যাতেও উপকারী উপাদান হিসেবে কাজ করে। তাই খোসাসহ খেতে পারেন এটি।

২. রক্তচাপ কমায়

শসা উচ্চ রক্তচাপ কমায় এবং হৃদরোগের ঝুঁকি কমায়। ২০১৭ সালের একটি গবেষণায় দেখা গেছে যে, বয়স্কদের শসার রস ১২ দিন খাওয়ানোর পর তাদের রক্তচাপ কমিয়েছে।

এ ছাড়া শসাতে ম্যাগনেসিয়াম ও পটাসিয়ামও থাকায় তা রক্তচাপ কমাতে সহায়তা করতে পারে এবং তা প্রস্রাবের মাধ্যমে সোডিয়াম নির্মূল করতে সহায়তা করে।

৩. হার্টের সুরক্ষায়

গবেষণায় দেখা গেছে, শসাতে থাকা মুক্ত অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট হার্ট পরিষ্কার করতে সহায়তা করে। এ ছাড়া এর অ্যান্টিঅক্সিডেন্টগুলো অক্সিডেটিভ স্ট্রেসকে বাধা দেয় এবং ক্যান্সার ও হৃদরোগে ভালো থাকতে সহায়তা করে।

তথ্যসূত্র: ইটদিস ডটকম।